ঢাকাশনিবার, ২৭শে নভেম্বর, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ, ভোর ৫:৫৬
আজকের সর্বশেষ সবখবর

দিনাজপুরের বীরগঞ্জে নকল কৃষি পণ্য ধ্বংস!!

নিজস্ব প্রতিবেদক
অক্টোবর ২২, ২০২০ ৪:৫৭ অপরাহ্ণ
পঠিত: 145 বার
Link Copied!

দিনাজপুর প্রতিনিধিঃ মোঃ রিয়াদ হাসান আকাশঃ

দিনাজপুরের বীরগঞ্জে নকল কৃষি পণ্য উদ্ধার করে প্রশাসনের সহায়তায় ধ্বংস করেছে ও আসল পণ্য কোম্পানী সেমকো কর্পোরেশন লিমিটেড এর এ.এস.এম মোঃ সাজেদুল করিম। বর্তমানে উত্তরবঙ্গে ধানের জমিতে ব্যাপক ভাবে কারেন্ট পোকা (বাদামী গাছ ফড়িং) এর আক্রমন দেখা দেওয়ায় কৃষক রীতিমত পাগল প্রায়। তারা দিনরাত অক্লান্ত পরিশ্রম সহ টাকা-পয়সা খরচ করে ফসল উৎপাদনের জন্য জমিতে বিভিন্ন কীটনাশক কোম্পানীর পণ্য জমিতে ব্যবহার করছে। বর্তমানের কারেন্ট পোকা (বাদামী গাছ ফড়িং) এর আক্রমন থেকে ফসল রক্ষা করতে কৃষক সেমকো কোম্পানীর হপারশট নামের একটি পণ্য ব্যবহার করে। এই পণ্য ব্যবহারে কৃষক খুবই সন্তুষ্ট এবং উপকৃত। কিন্তু বর্তমানে কোম্পানীর কাছে এই পণ্যের যথেষ্ট সরবরাহ না থাকায় কিছু অসাধু ব্যবসায়ী এরই সুবিধা নিয়ে হুবহু নকল (হপারশট) করে বাজারজাত করছেন। যা কৃষক আসল হপারশট মনে করে কৃষি জমিতে ব্যবহার করে কোন ফলাফল পাচ্ছে না এবং প্রতারিত হচ্ছে।

গত ১৯শে অক্টোবর রোজ- সোমবার ঠাকুরগাঁও জেলার ভুল্লী বাজার এবং মুন্সীরহাট বাজার হতে ডেলিভারী মেন সহ হাতে-নাতে স্থানীয় অফিসার মোঃ এনামুল হোসেন, দিনাজপুর ডিপোর এ.এস.এম মোঃ সাজেদুল করিম এবং স্থানীয় পরিবেশক ও রিটেইলারগণ মিলে ২০ কার্টুন নকল হপারশট জব্দ করে। উক্ত পণ্য এবং ডেলিভারী ম্যান সহ কোম্পানীর প্রাইভেটকারে ঠাকুরগাঁও কৃষি অফিসে আনা হয়। পরবর্তীতে কৃষি অফিসারের সহায়তায় নকল পণ্য সরবরাহকারী কে খুজে বের করা হয়। নকল পণ্য সরবরাহকারী মোঃ হানিফ (কীটনাশক ব্যবসায়ী) কল্যাণী বাজার, বীরগঞ্জ কে বীরগঞ্জ এর কৃষি অফিসার কৃষিবিদ মোঃ আবু রেজা এবং স্থানীয় চেয়ারম্যান মোঃ আব্দুল খালেক সরকার সহ উপস্থিত জনগণের সম্মুখে বিচারের জন্য হাজির করা হয়। তৎক্ষণাৎ তার বৈধ কীটনাশক লাইসেন্স বাতিল করা হয় এবং পরের দিন ২০শে অক্টোবর রোজ- মঙ্গলবার এলাকাবাসীর সম্মুখে কৃষি অফিসার, চেয়ারম্যান এবং কোম্পানীর প্রতিনিধিগণের উপস্থিতিতে বীরগঞ্জ টু খানাসামা মেইন রোডের পাশে নকল হপারশটের ২০ কার্টুন পণ্য মোঃ হানিফের নিজ হাতে মাটিতে পুতে এবং আগুন দিয়ে জ্বালিয়ে নষ্ট করে দেওয়া হয়। কিন্তু নকল পণ্যের আসল উৎস এখনো খুজে বের করা যায়নি বলে দাবী করছেন সেমকো কর্পোরেশন লিমিটেড। কৃষকের স্বার্থে তারা এ বিষয়ে সরকারের দৃষ্টি আকর্ষণ করছেন।

বাংলার মাটিতে বাংলার কৃষকের সাথে যেন কেউ এরকম প্রতারণা করতে না পারে সেজন্য নকল পণ্যের আসল উৎস খুজে বের করে দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির আওতায় আনার দাবী জানায় সেমকো কর্পোরেশন লিমিটেড কর্তৃপক্ষ।

দৈনিক বাংলাদেশ আলো পত্রিকায় প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না