লালমোহনে শিক্ষা-প্রতিষ্ঠানে বরাদ্দের টাকা আত্মসাতের অভিযোগ


বিডি আলো ডেস্ক প্রকাশের সময় : অগাস্ট ৩১, ২০২১, ৭:৫৫ অপরাহ্ন /
লালমোহনে শিক্ষা-প্রতিষ্ঠানে বরাদ্দের টাকা আত্মসাতের অভিযোগ

মো কামরুল হোসেন সুমন,ভোলা

ভোলার লালমোহনের ‘উত্তর তারাগঞ্জ সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়’ এর নামে বিভিন্ন সময়ে বরাদ্দকৃত অর্থ আত্মসাতের অভিযোগ উঠেছে ওই বিদ্যালয়ের ম্যানেজিং কমিটির সভাপতি এমদাদ উল্যাহ ও ভারপ্রাপ্ত প্রধান শিক্ষিকা খায়রুন পারভিনের বিরুদ্ধে। গত বৃহস্পতিবার উপজেলা প্রাথমিক শিক্ষা অফিসসহ কয়েকটি দপ্তরে ওই বিদ্যালয়ের ম্যানেজিং কমিটির ৭ সদস্যের স্বাক্ষর সম্বলিত একটি লিখিত অভিযোগ দেয়া হয়।
অভিযোগে উল্লেখ করা হয়েছে, উত্তর তারাগঞ্জ সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের নামে ২০২০ সালে স্লিপ, রুটিন, দূর্যোগ প্রাকসহ ১লক্ষ ৫ হাজার টাকা এবং ২০২১ সালে ক্ষুদ্র মেরামত, স্লিপ ও অন্যান্যসহ ৩ লক্ষ টাকা বরাদ্দ হয়। বিদ্যালয়ের সভাপতি ও ভারপ্রাপ্ত প্রধান শিক্ষিকা নির্ধারিত কোনো কাজ না করে যৌথভাবে ওই টাকা আত্মসাত করেন। তাই অর্থ আত্মসাতের বিষয়টির সঠিক তদন্তপূর্বক ব্যবস্থা নেয়ার দাবি করেন অভিযোগকারীরা।
বিদ্যালয়টির ভারপ্রাপ্ত প্রধান শিক্ষিকা খায়রুন পারভিন বলেন, স্থানীয় একটি মহল নারী হিসেবে আমাকে হেয় করতে এসব অভিযোগ করেছেন। মূলত যেসব খাতের জন্য বরাদ্দ এসেছে, সেসব খাতে ওইসব টাকা ব্যয় করেছি। যারা অভিযোগ করেছেন তাদের অভিযোগের কোনো সত্যতা নেই।
এ ব্যাপারে উপজেলা প্রাথমিক শিক্ষা অফিসার মো. আকতারুজ্জামান মিলন বলেন, এধরনের একটি লিখিত অভিযোগ পেয়ে ঘটনার সঠিক তদন্তের জন্য একজন সহকারি প্রাথমিক শিক্ষা অফিসার (এটিও) কে দায়িত্ব দেয়া হয়েছে। তদন্তের পরে অভিযোগের সত্যতা পেলে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।